ব্রেকিং নিউজ

x


হাজীগঞ্জে চাল নিয়ে ধুম্রজাল, কার্যালয় থেকে ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ

শুক্রবার, ১৭ এপ্রিল ২০২০ | ৪:৩৪ অপরাহ্ণ

হাজীগঞ্জে চাল নিয়ে ধুম্রজাল, কার্যালয় থেকে ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ

হাজীগঞ্জ উপজেলার ২নং বাকিলা ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে গত ১৫ এপ্রিল মঙ্গলবার রাতে ত্রাণের জন্য প্যাকেট তৈরী সময় প্রশাসনের অভিযান হয়। এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বৈশাখী বড়ুয়া তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন।

এসব নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে তুমুল আলোচনা সমালোচনা। এ নিয়ে ১৬ এপ্রিল উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এক পরিপত্র জারি করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার বৈশাখী বড়ুয়া।

পরিপত্রে বলা হয়েছে, ১। খাদ্য গুদাম হতে চাল উত্তোলন করার পূর্বে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও সংশ্লিষ্ট ট্যাগ অফিসারগণকে অবহিত করতে হবে এবং পরিবহনকালীন নিরাপত্তা নিশ্চিতের জন্য থানা অফিসার ইনচার্জকে অবহিত করতে হবে।

২। উত্তোলনকৃত চাল কোথায় রাখা হয়েছে তা উপজেলা নির্বাহী অফিসার, থানার ওসি ও ট্যাগ অফিসাগণ এবং উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তাকে অবহিত করতে হবে।

৩। সরকারী যেকোন ত্রাণ সামগ্রী স্ব স্ব প্রতিষ্ঠান/ইউনিয়ন পরিষদ ব্যতিত অন্য কোথায়ও মজুদ রাখা যাবে না।

৪। রাতে ত্রাণ বিতরণ এবং ত্রাণ সামগ্রী প্যাকেটজাত করতে হলে আবশ্যিকভাবে সংশ্লিষ্ট ট্যাগ অফিসার এবং আইন শৃংঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর উপস্থিতিতে করতে হবে। তবে এ ক্ষেত্রে উপজেলা নির্বাহী কর্মকতাকে লিখিত ভাবে অবহিত করে অনুমতি সাপেক্ষে করতে হবে।

৫। ত্রাণ সামগ্রী বিতরণের পূর্বে উপজেলা নির্বাহী অীপসার এবং সংশ্লিষ্ট ট্যাগ অফিসারগণদের অবহিত করতে হবে।

৬। ত্রাণ সামগ্রী বিতরণের ক্ষেত্রে মানবিক সহায়তা কর্মসূচী বাস্তবায়ন নির্দেশিকা ২০১২-২০১৩ যথাযথভাবে অনুসরন করতে হবে।

এছাড়া চাঁদপুরে গত দুই দিনে মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও ইউপি চেয়ারম্যানের বরাদ্দকৃত চাউলের বস্তা নিয়ে ধুম্রজাল চলছে। ১৬ এপ্রিল বুধবার দুপুরে চাঁদপুর সদর মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আবিদা সুলতানা বাসা থেকে ৬৭ বস্তা চাউল ও রাতে কল্যাণদী ইউপি চেয়ারম্যান সাখাওয়াত হোসেন রনি বাসা থেকে ৩৫ বস্তা চাউল স্থানান্তর করতে গিয়ে জনতার রোষানলে পড়ে। পরে ওই চাউলগুলো উদ্ধার করে প্রশাসন।

এনিয়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ জামান স্বাক্ষরিত এক পরিপত্রে জানানো হয়, কোন কোন জনপ্রতিনিধি করোনা ভাইরাসে বরাদ্দকৃত জনগণের ত্রাণের চাউল উত্তোলন করে স্ব স্ব কার্যালয় অথবা নিজস্ব বাসায় রেখে বিতরণ করছেন। যার ফলে কিছু কিছু ক্ষেত্রে ভুল বোঝাবুঝির সৃষ্টি হচ্ছে।

পরিপত্রে তিনি নির্দেশনা দিয়ে বলেন, এখন থেকে বরাদ্দকৃত ত্রাণের চাউল উত্তোলন ও বিতরনের সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও থানা পুলিশকে অবহিত করতে হবে। অবশ্যই স্ব স্ব কার্যালয় থেকে ত্রাণ বিতরণ করতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ৪:৩৪ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, ১৭ এপ্রিল ২০২০

protidin-somoy.com |

Development by: webnewsdesign.com